আওয়ামীলীগ সরকারের ক্ষমতার ১ যুগেও উন্নয়নের ছোঁয়া পায়নি শুনইবাসী

Share This Story !

মোঃ ফয়সাল খান, নেত্রকোনা জেলা প্রতিনিধি। ধারাবাহিক তিন বারের রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় বর্তমান ক্ষমতাশীন দল আওয়ামীলীগ সরকার থাকলেও ভাগ্যের কোন পরিবর্তন আসেনি শুনইবাসীর। নেত্রকোনা জেলাধীন আটপাড়া উপজেলার অদূরে সুপ্রাচীন গ্রাম শুনই। নাঙ্গলীয়া নদীর দুকূল ঘেঁষে নানান ইতিহাস ঐতিহ্যের সাক্ষী হয়ে দাড়িয়ে আছে গ্রামটি ।আছে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার পাচঁ হাজারেরও বেশি লোকসংখ্যা। রয়েছে স্কুল, মাদ্রাসা সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। গ্রামটির অধিকাংশ মানুষ কৃষি নির্ভর। আছে তিন শতাধিকেরও বেশি শিক্ষার্থীর নিত্যদিনের পদচারনা।

এলাকাবাসীর মতে, গ্রামটির রয়েছে নানান ইতিহাস ঐতিহ্যে নেই শুধু ধারাবাহিক রাষ্ট্রীয় উন্নয়ন। বিগত ১২ বছরেও চোখে পড়ার মতো কোন উন্নয়ন দেখেননি এলাকাবাসী। এই নিয়ে জনমনে নানান প্রশ্ন আর হতাশা থাকলেও আশার আলো দেখাতে পারেনি স্থানীয় প্রতিনিধি বা ক্ষমতাশীন দলের নেতারা। আবার অনেকেই প্রতিশ্রুতি দিলেও সময়ের সাথে আর প্রতিশ্রুতি আলোর মুখ দেখেনি।

বর্তমান সরকার ক্ষমতা আসার পরে আসেনি কোন বড় প্রজেক্ট। যোগাযোগ ক্ষেত্রে আসেনি সামান্যতম পরিবর্তন। এরই সাথে শুনই ঐতিহাসিক ঈদগাহ মাঠ সংলগ্ন নাঙ্গলীয়া নদীর উপর একটি ব্রিজ এলাকা বাসীর দীর্ঘদিনের দাবী।চাহিদা থাকলেও নেই কোন অগ্রগতি। বাধ্য হয়েই শিশু,নারী , বৃদ্ধগন এখনও ঝুঁকি নিয়ে বাঁশের সাঁকুয় নদী পারাপার হতেই দেখা যায়। গ্রামটির উত্তর ভাগে চাঁনপুর এলাকায় হয়নি ছিটেফোটা উন্নয়ন।

স্বল্প শুনইয়ের মধ্য ভাগ দিয়ে মাগুড়া হাওর হয়ে শান্তিপুর পর্যন্ত কাঁচা মাটির রাস্থাটি, এখনও প্রাচীন যুগের স্মারক হয়েই আছ, নেই কোন পরিবর্তন। বর্ষা মৌসুমে যোগাযোগ বিচ্ছিন্নতার কারনে স্থানীয় স্কুলগুলোতে অনুপস্থিতির সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় দ্বিগুণের ও বেশি। অনেকেই আবার নদী সাঁতরেও পারাপার হতে দেখা যায়।এই ব্যাপারে স্থানীয় কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থী আল আকরাম খান মুন্নার কাজে প্রশ্ন করলে তিনি জানান যে, বর্তমান সরকার ক্ষমতায়র একযুগ পেরিয়ে গেলেও কোন প্রকার উন্নয়ন চোখে দেখা হয়নি।

তিনি মনে করেন শুনই বাসীর জন্যে উন্নয়ন শুধু একটি শব্দই মাত্র, উন্নয়ন ভোগের সৌভাগ্য এলাকাবাসীর হয়নি ১২ বছরেও। স্থানীয় সচেতন নাগরিক মনে করেন ক্ষমতার পালাবদলের ফলে সুবিধা ভোগ করে কিছু সংখ্যক মানুষ। সাধারণ মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন সোনার হরিণ হয়েই রয়ে গেলো।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *