জামালপুরে ট্রাক আটকিয়ে ত্রাণসামগ্রী কেড়ে নেওয়ার ঘটনায় মামলা, ৫জনকে গ্রেপ্তার

Share This Story !

জামালপুরে ট্রাক আটকিয়ে ত্রাণসামগ্রী কেড়ে নেওয়ার ঘটনায় ১৩ জনের নামে মামলা করেছে পৌর কাউন্সিলর জামাল পাশা।

জামালপুর সদর থানার ওসি মো. সালেমুজ্জামান জানান, সোমবার রাত সাড়ে ১২টায় জামালপুর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জামাল পাশা বাদী হয়ে সদর থানায় ১৩ জনকে আসামি করে মামলা করেন। সোমবার এ মামালায় পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- রফিক (৫০), খোরশেদ আলম (২৫), জীবন (২৩), আমির আলী (৩৫) ও সলিমুদ্দিন (২৮)।

মামলায় কাউন্সিলর জামাল পাশা অভিযোগ করেন, রোববার ত্রাণবাহী ট্রাক ৬নং ওয়ার্ডের বানিয়াবাজার যাওয়ার পথে পৌরসভার মুকুন্দবাড়ি এলাকায় সেটি আটকে ত্রাণের ৪০০ প্যাকেট চাল ও আলু ‘লুটের ঘটনা ঘটে।’ এ সময় সেখানে উপস্থিত কাউন্সিলর জামাল পাশাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মারতে আসে বলে মামলায় অভিযোগ করেন বাদী । ওসি সালেমুজ্জামান জানান, অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

ঘটনার বিষয়ে জানা যায়, পৌরসভার ২, ৪ ও ৬ নং ওয়ার্ডের কর্মহীন দরিদ্র মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণের জন্য ১০ কেজি ওজনের ৬শ’ প্যাকেট চাল ও ৩ কেজি ওজনের ৬শ’ প্যাকেট আলু নিয়ে সিংহজানী খাদ্য গুদাম থেকে একটি ট্রাক বানিয়া বাজার এলাকায় যাচ্ছিলো। এ সময় মুকন্দবাড়ি এলাকায় ত্রাণ না পাওয়া কর্মহীন হতদরিদ্র নারী-পুরুষরা ট্রাক আটকিয়ে চাল ও আলু কেড়ে নিয়েছে। পরে ত্রাণ সামগ্রী বহনকারী ট্রাকটি সেখান থেকে দ্রুত চলে যায়।

জামালপুর পৌরসভার মেয়র মির্জা সাখাওয়াতুল আলম মনি রোববার দাবি করেছিলেন ত্রাণ সামগ্রী লুট হয়নি, ৬নং ওয়ার্ডের কর্মহীন মানুষের মাঝে ট্রাক থেকেই বিতরণ করা হয়েছে এসব ত্রাণ।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *